শিরোনামঃ
কাতারে জাতীয় আইনসভা নির্বাচনের মোট প্রার্থীর সংখ্যা ঘোষণা শাহজালাল বিমানবন্দরে পিসিআর ল্যাব স্থাপন নিয়ে শুরু নতুন সংকট বিকল্প উপায়ে আমিরাত যাচ্ছেন আটকে থাকা প্রবাসীরা, ব্যয় হচ্ছে ৫ গুণ বেশি কাতারে থাকা বাংলাদেশিদের ফোনে কল দিয়ে চাওয়া হচ্ছে তথ্য, দূতাবাসের সতর্কতা সাইকেল চালিয়ে এক্সপো পরিদর্শনে আরব আমিরাতের প্রধানমন্ত্রী কাতারে আজ থেকে শ্রমিকদের জন্য কর্মবিরতির মেয়াদ শেষ বিমানে দেশে বা বিদেশে ভ্রমণের আগে যে বিষয়গুলো খেয়াল রাখা জরুরি তিন দিনে বিমানবন্দরের বসছে পিসিআর ল্যাব, দায়িত্ব পেল ৭ প্রতিষ্ঠান বিদেশ থেকে কার্গোতে দেশে মালামাল পাঠানো নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ তথ্য কাতারে তৃতীয় ডোজের টিকা দেওয়া শুরু, আগে যারা পাবেন অগ্রাধিকার
পদ্মা সেতু এলাকায় পাগলের ছদ্মবেশে থাকা সন্দেহজনক ১৬ ভারতীয় গ্রেপ্তার

পদ্মা সেতু এলাকায় পাগলের ছদ্মবেশে থাকা সন্দেহজনক ১৬ ভারতীয় গ্রেপ্তার

পদ্মা সেতু এলাকা থেকে গত সাড়ে চার বছরে ১৬ ভারতীয় নাগরিককে গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে। সন্দে’হজনকভাবে ঘোরাফে’রা করার অ’ভিযো’গে শরীয়তপুরের জাজিরা ও মাদারীপুরের শিবচর থা’না-পুলিশ তাঁদের গ্রে’প্তার করে। এ ব্যাপারে ১৩টি মাম’লাও হয়েছে।

 

পুলিশ কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, গ্রেপ্তার ব্যক্তিদের বেশির ভাগই পাগ’লের মতো আচ’রণ করেছেন। তাঁদের কয়েকজন নিজের নাম-পরিচয়ও বলেননি। শরীয়তপুর জেলা পুলিশ জানিয়েছে, গ্রে’প্তার ব্যক্তিদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের পর অ’বৈধ অনুপ্রবেশের অভিযো’গে মাম’লা করে তাঁদের আ’দালতে পাঠানো হয়। এ ঘটনায় দায়ের করা ১১টি মা’মলায় শরীয়তপুর জেলা-পুলিশ অ’ভিযো’গপত্র দিয়েছে।

 

শরীয়তপুরের জাজিরা থানার পুলিশ জানিয়েছে, জাজিরা প্রান্তে পদ্মা সেতুর নিরাপ’ত্তার দায়িত্বে থাকা সদস্যরা গত ২৭ জুলাই লালু নামের এক ভারতীয় নারীকে গ্রে’প্তার করেন। তার আগে ২৫ জুন গ্রে’প্তার করা হয় রূপসা রায় দিপককে। ২৩ জুন রাতে বিজলি কুমার রায় নামে আরেকজনকে গ্রে’প্তার করা হয়।

 

জাজিরা থা’নার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহবুবুর রহমান বলেন, ২০১৭ সাল থেকে জাজিরা থানার পদ্মা সেতু এলাকা থেকে ১৫ জন ভারতীয়কে গ্রে’প্তার করা হয়েছে। তাঁদের কাছ থেকে কোনো ভিসা কিংবা পাসপোর্ট পাওয়া যায়নি। অ’বৈধভাবে তাঁরা এ দেশে প্রবেশ করেছিলেন। ২০২০ সালের ৬ মার্চ পদ্মা সেতু এলাকা থেকে গ্রে’প্তার হন ভারতীয় নাগরিক প্রমথ কুমার চঞ্চল ও স’ঞ্জয় সেন।

 

মাদারীপুরের শিবচর থানার ওসি মিরাজ হোসেন বলেন, সম্প্রতি গৌরী নামে এক ভারতীয় নাগরিককে পদ্মা সেতুর কাঁঠালবাড়ি এলাকা থেকে গ্রে’প্তা’র করা হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদে তিনি ভারতের একটি ঠিকানা দিয়েছেন। বর্তমানে তিনি কারাগারে। গ্রে’প্তার হওয়া নারী ছ’দ্মবেশ নিয়েছিলেন বলে তিনি মনে করেন। আইনশৃঙ্খ’লা র’ক্ষাকারী বাহিনীর কর্মকর্তারা বলেছেন, এসব লোকজন কেন পদ্মা সেতু এলাকায় ঘো’রাফেরা করছিলেন, তার কোনো কারণ জানা যায়নি। জিজ্ঞা’সাবাদে তাঁদের কাছ থেকে তেমন কোনো তথ্য পাওয়া যায়নি।

সংবাদটি শেয়ার করুন




© ২০২১ | বিডি রাইট কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Design BY NewsTheme