মেয়েদের অর্থসহ ইসলামিক নাম

মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম অর্থসহ, মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম বাংলা অর্থসহ

আজকে আমরা জানবো মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম অর্থসহ বা মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম অর্থসহ । বাছাইকৃত মুসলিম মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম অর্থসহ। বর্তমান যুগে সবাই চায় তাদের বাচ্চাদের নামটি যেন আধুনিক ও ইসলামিক হয়।

 

অনেকে আছে চায় বাচ্চার নামটি যেন সহজ ও সুন্দর হয়। তবে নাম বাছাই করতে গিয়ে অনেক হিমশিম খেতে হয়। সবাই যাতে সুবিধা মতো বাচ্চাদের নাম বাছাই করতে পারেন তাই, কিছু মেয়ে শিশুদের আধুনিক ইসলামিক নাম নিয়ে আসলাম।

 

তাহলে চলুন দেখে নেয়া যাক মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম অর্থসহ বা মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম অর্থসহ বা মুসলিম মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম অর্থসহ। মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম অর্থসহঃ

১। তাসলিমা = সমর্পণ
২। আকরা = সাদা
৩। ফারিয়া = আনন্দ
৪। সুলতানা = মহারানী
৫। হালিমা = দয়ালু
৬। আরজু = আকাঙ্ক্ষা
৭। আরমানী = আশাবাদী
৮। আক্তার = ভাগ্যবান
৯। আশরাফী = সম্মানিত

 

১০। সাইয়ারা = তারকা
১১। ইরতিজা = অনুমতি
১২। নাদীরা = বিরল
১৩। শিরিন = সুন্দরী
১৪। ইসরাত = সাহায্য
১৫। আম্বিয়া = শান্তি স্থাপনকারী
১৬। আফিয়া = পুণ্যবতী
১৭। কামরুন = ভাগ্য
১৮। জুলফা = বাগান

 

১৯। জেবা = যথার্থ
২০। তাওবা = অনুতাপ
২১। রাশিদা = বিদুষী
২২। সামিয়া = রোজাদার
২৩। ইরতিজা = অনুমতি
২৪। গওহর = মুক্তা
২৫। শাহিনুর = চাঁদের আলো

 

২৬। রায়হানা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুগন্ধি ফুল
২৭। তহুরা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = পবিত্র
২৮। দীনা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = বিশ্বাসী
২৯। ইশাত – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = বসবাস
৩০। ইয়াসমিন – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = ফুলের নাম
৩১। মাহমুদা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = প্রশংসিতা
৩২। সালিমা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুস্থ

 

৩৩। জয়া – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = স্বাধীন
৩৪। পুস্পা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = ফুল
৩৫। রামিসা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = নিরাপদ
৩৬। রোমানা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = ডালিম
৩৭। তাহিয়া – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নামের অর্থ = সম্মানকারী
৩৮। সুলতানা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = মহারানী
৩৯। হাবিবা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = প্রিয়া

 

৪০। তোহফা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = উপহার
৪১। রাইসা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = রাণী
৪২। জিমি – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = উদার
৪৩। রিফা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = উত্তম
৪৪। আয়েশা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সমৃদ্ধশালী
৪৫। হুমায়রা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = রূপসী
৪৬। রাফিয়া – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = উন্নত
৪৭। শাহিনুর – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = চাঁদের আলো
৪৮। ইভা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সম্মান
৪৯। রিয়া – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = লোক দেখানো
৫০। তুবা – মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুসংবাদ

 

৫১। নুসরাত – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সাহায্য
৫২। নাহিদা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = উন্নত
৫৩। শাহানা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = রাজকুমারি
৫৪। খুশি – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুখী
৫৫। তাহসিনা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = উত্তম
৫৬। শামিমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুগন্ধি
৫৭। নিশাত – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = আনন্দ

 

৫৮। সানজিদা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = বিবেচক
৫৯। সাগরিকা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = তরঙ্গ
৬০। এশা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = পবিত্র
৬১। তোহফা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = উপহার
৬২। নাফিসা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = মূল্যবান
৬৩। সাজেদা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = ধার্মিক
৬৪। হেনা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = মেহেদি
৬৫। তাসমিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = নামকরণ
৬৬। দিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = প্রদীপের মতো উজ্জ্বল
৬৭। মাসুমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = নিষ্পাপ

 

৬৮। নাওয়ার – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সাদা ফুল
৬৯। সালমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = প্রশন্ত
৭০। নাফিজা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = পবিত্র
৭১। তাহিজাহ – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = শুভেচ্ছা
৭২। মালিহা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = রূপসী
৭৩। নাদিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = আহবান
৭৪। শাহিরা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = পর্বত
৭৫। নাফিসা – মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = মূল্যবান

 

৭৬। দানিন – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = রাজকুমারী
৭৭। হাসিনা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুন্দরী
৭৮। অমি – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = নাম বিশেষ্য
৭৯। মীম – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = আরবি হরফ
৮০। রোমানা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = ডালিম
৮১। লতিফা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = ঠাট্টা
৮২। সাকেরা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = কৃতজ্ঞ
৮৩। নাবিলাহ – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = ভদ্র
৮৪। রামলা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = বালিময় ভূমি
৮৫। হাবিবা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = প্রিয়া
৮৬। মাহবুবা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = প্রেমিকা
৮৭। আনিসা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = কুমারী
৮৮। নাদীরা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নাম এর অর্থ = বিরল
৮৯। রুমালি – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = কবুতর
৯০। ফারিহা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = সুখী
৯১। লাবিবা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = জ্ঞানী

 

৯২। আনিফা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = রূপসী
৯৩। নাহিদা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = উন্নত
৯৪। দিবা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = সোনালী
৯৫। শাবানা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = রাত্রিমদ্ধে
৯৬। রাইসা – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = রাণী
৯৭। রাওনাফ – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = সৌন্দর্য
৯৮। জিনাত – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = সৌন্দর্য
৯৯। বিলকিস – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = রাণী
১০০। মুমতাজ – মুসলিম মেয়েদের ইসলামিক নামের অর্থ = মনোনীত

 

১০১। নাহলা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = পানি
১০২। আরিফা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = প্রবল বাতাস
১০৩। মাহিয়া – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = নিবারণকারীনি
১০৪। আনিকা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = রূপসী
১০৫। আকলিমা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = দেশ
১০৬। নুরা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = মনযোগী
১০৭। নিশাত – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = সাদা হরিণ

১০৮। তাবিয়া – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = অনুগত
১০৯। রিমা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = সাদা হরিণ
১১০। মুরশিদা – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = পথর্শীকা
১১১। রওশন – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = উজ্জ্বল
১১২। তাবাসসুম – মেয়ের ইসলামিক নামের অর্থ = মুসকি হাসি

 

১১৩। মানিহা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুন্দরী
১১৪। সামিয়া – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = রোজাদার
১১৫। ফারজানা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = জ্ঞানী
১১৬। তাসমিয়া – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = নামকরণ
১১৭। ফারহাত – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = আনন্দ
১১৮। মাছুয়া – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = নল
১১৯। পাপিয়া – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুকণ্ঠী নারী
১২০। সাইয়ারা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = তারকা
১২১। শাহানা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = রাজকুমারী
১২২। ফরিদা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = অনুপম
১২৩। মুনতাহা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = পরিক্ষিত
১২৪। আফিয়া – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = পুণ্যবতী
১২৫। রায়হানা – মেয়ের ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুগন্ধি ফুল

 

১২৬। রহিমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = দয়া , করুণা
১২৭। ফাতেহা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = আরম্ভ
১২৮। শাহানা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = রাজকুমারী
১২৯। তাবিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = অনুগত
১৩০। মাহমুদা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = প্রশংসিতা
১৩১। সাইয়ারা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = তারকা
১৩২। ফাতেমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = নিষ্পাপ
১৩৩। সালমা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = প্রশন্ত
১৩৪। মারজানা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = মুক্তা
১৩৫। আফরা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = সাদা
১৩৬। রায়হানা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = সুগন্ধি ফুল
১৩৭। হুমায়রা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নামের অর্থ = রূপসী
১৩৮। তাকিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = চরিত্র
১৩৯। ফাহমিদা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = বুদ্ধিমতী

 

১৪০। মাদেহা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = প্রশংসা
১৪১। রামিসা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = নিরাপদ
১৪২। মেহেরিন – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = দয়ালু
১৪৩। মালিহা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = সুন্দরী
১৪৪। নুসরাত – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = সাহায্য
১৪৫। আদিবা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = লেখিকা
১৪৬। ফারিহা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = সুখী
১৪৭। সাদিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = সৌভাগ্যবতী
১৪৮। মারিয়া – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = শুভ্র
১৪৯। নাফিসা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = মূল্যবান
১৫০। শাফিকা – মুসলিম মেয়ে শিশুর নাম এর অর্থ = সুপারিস কারিণী

 

১৫১। আতিয়া – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = উপহার
১৫২। নার্গিস – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = ফুলের নাম
১৫৩। মেহজাবিন – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুন্দরী
১৫৪। ফেরদৌস – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = পবিত্র
১৫৫। হাসিনা – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সুন্দরী
১৫৬। ফাহিমা – মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = জ্ঞানী
১৫৭। হানিয়া – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুখী
১৫৮। হাসনা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সুন্দরী
১৫৯। নুসাইফা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = ইনসাফ

 

১৬০। সাহেবি – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = বান্ধবী
১৬১। দিবা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সোনালী
১৬২। শাহিদা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = সৌরভ , সুবাস
১৬৩। জাবিরা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = রাজি হওয়া
১৬৪। বশীরা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = উজ্জ্বল
১৬৫। তাবিয়া – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ= অনুগত
১৬৬। বশিরা – শিশুর ইসলামিক নামের অর্থ = উজ্জ্বল
১৬৭। জাহান – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = পৃথিবী
১৬৮। আনজুম – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = তারা
১৬৯। নাওয়ার – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = সাদা ফুল
১৭০। জারা – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = গোলাম
১৭১। ফিরোজা – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = মূল্যবান পাথর
১৭২। আমিনা – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = বিশ্বাসী
১৭৩। কানিজ – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = অনুগতা
১৭৪। মনিরা – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = জ্ঞানী
১৭৫। সাগরিকা – শিশুর ইসলামিক নাম এর অর্থ = তরঙ্গ

 

১৭৬। সুবাহ = প্রভাত
১৭৭। সহেলী = বান্ধবী
১৭৮। শাহবা = ছাতা
১৭৯। জামিলা = সুন্দরী
১৮০। আকিলা = বুদ্ধিমতী
১৮১। হাফেজা = সংরক্ষণকারীনি
১৮২। মিনা = সর্গ
১৮৩। সীমা = কপাল
১৮৪। সাইদা = নদী
১৮৫। তানজিম = সুবিন্যস্ত
১৮৬। রাফা = সুখ
১৮৭। দিলরুবা = প্রিয়তমা
১৮৮। ফাওজিয়া = বিজয়িনী
১৮৯। নওশীন = মিষ্টি
১৯০। নাইমা = সুখ

 

১৯১। নিশাত = আনন্দ
১৯২। লায়লা = শ্যামলা
১৯৩। রোশনি = আলো
১৯৪। ফাহমিদা = বুদ্ধিমতী
১৯৫। রাওনাফ = সৌন্দর্য

১৯৬। শাবানা = রাত্রিমধ্যে
১৯৭। মাজেদা = সম্মানীয়া
১৯৮। মুহসিনাত = অনুগ্রহ কারিণী
১৯৯। রহিমা = দয়ালু
২০০। মাজেদা = সম্মানিয়া
২০১। রুমালি = কবুতর
২০২। মেহেরিন = দয়ালু
২০৩। লায়লা = শ্যামলা
২০৪। মুমতাজ = মনোনীত
২০৫। আফনান = গাছের শাখা প্রশাখা
২০৬। নাজমা = দামী
২০৭। সাবিহা = রূপসী
২০৮। হামায়না = সুন্দরী

 

এই নামগুলো হল সর্বশ্রেষ্ঠ বাছাইকৃত মুসলিম মেয়ে শিশুর ইসলামিক নাম অর্থসহ বা মুসলিম মেয়ে বাবুর ইসলামিক নাম অর্থসহ বা মুসলিম মেয়ে শিশুদের ইসলামিক নাম অর্থসহ।

More News in this Category

Leave a Reply